কিশোর-প্রবন্ধ

কিশোর-প্রবন্ধ

SHARE:

কিশোর-বয়সী পাঠকদের পড়ার উপযোগী বিন্যাস ও ভাষায় একগুচ্ছ প্রবন্ধ মলাটবন্দি করে একটি দৃষ্টিনন্দন বই ‘কিশোর-প্রবন্ধ’। বইটি লিখেছেন সুমনকুমার দাশ। বইয়ের প্রচ্ছদ করেছেন সুভাষ চন্দ্র নাথ।

বইয়ের ভিতরে মোটমাট ছয়টি প্রবন্ধ রয়েছে। প্রবন্ধের বিষয়বস্তুও অত্যন্ত মনকাড়া। আবহমান বাংলার গাছপালা, হাওড়বাওড়, গ্রামজনপদের সাধারণ অথচ ক্ষয়িষ্ণুপ্রায় ঐতিহ্যের কিছু প্রসঙ্গ-অনুষঙ্গ প্রবন্ধগুলোর মুখ্য বিষয়।

কিশোর-বয়সী পাঠকদের পঠনোপযোগী বইয়ের রচনা ও প্রকাশ বাংলায় নিত্যদৃশ্য না-হলেও একেবারেই বিরল নয়। এমনকিছু বই রয়েছে এই ধারায় যেগুলো বাংলা সাহিত্যে ক্ল্যাসিকের মর্যাদা লাভ করেছে। উপেন্দ্রকিশোর এবং সুকুমারের কিছু অনবদ্য রচনা এবং বই এক্ষেত্রে পাঠকের মনে পড়বে, যে-রচনা এবং বইগুলো প্রবন্ধের আঙ্গিকে লেখা। সাম্প্রতিক হুমায়ুন আজাদ প্রণীত কিশোরসাহিত্য ধারায় বেশকিছু দুর্ধর্ষ বইয়ের স্মৃতি নিশ্চয় পাঠক রোমন্থন করতে পারবেন। এর বাইরে যেসব রচনা সাধারণত গ্রন্থাবদ্ধ হতে দেখা যায় সেগুলো কিশোরবয়ঃসীমার নিচের স্তর তথা শিশুতোষ রচনা প্রধানত। উল্লেখ বাহুল্য যে সেসব রচনা অধিকাংশত ছড়া এবং গল্প। প্রবন্ধগ্রন্থ বড়দের জন্যই সীমাবদ্ধ, সর্বোপরি প্রাপ্তমনস্ক পাঠকের জন্যও প্রবন্ধের প্রাপ্যতা খুব-যে বেশি তা-ও নয়।

এহেন পরিপ্রেক্ষিতে লেখকের কিশোর-প্রবন্ধ প্রকাশের উদ্যোগ নিঃসন্দেহে সাধু। অত্যন্ত সহজ শব্দলগ্নি এবং জটিলতাহীন সরস বাক্যবন্ধযোগে বইটি লিপিবদ্ধ। সচিত্র। কলেবর অনতিদীর্ঘ হলেও অতি ছিমছাম এর পারিপাট্য। বইটির হরফসজ্জা এবং পাতাবিন্যাস মনোগ্রাহী। কিশোর-বয়সী পাঠকরা ছাড়াও নন্দনতৃষ্ণ বয়স্ক পাঠকদেরও বইটি আকৃষ্ট করবে।

এমনিতে এই কথাটা প্রাসঙ্গিক বিবেচনায় একটু উল্লেখ করা যাক যে, বাংলায় শিশুসাহিত্য বলিয়া আমরা যে-একপ্রকার রচনাধারার দেখা পাই, সেই লিখিত সাহিত্যের গোড়া থেকেই সম্ভবত এই রচনাসম্ভার অত্যন্ত উল্লেখযোগ্যভাবেই ঋদ্ধ। দুনিয়ায় এমন গুটিকয় ভাষা-অধিবাসী পাওয়া যাবে যারা এইদিক থেকে বাংলার সঙ্গে পাল্লা দিতে পারবে। এক-সময় বাংলার শিশুসাহিত্যের পাঠকযোগ ঈর্ষণীয় পরিমাণেই ছিল, বর্তমানে কেমন অবস্থা তা কে বলতে পারে। দেখি তো বছর-বছর প্রচুর শিশুসাহিত্য প্রকাশিত হয়, পাব্লিশিং হাউজও গড়ে ওঠে নতুন অনেক। তবে এইগুলার সার্কুলেশন ও সাবস্ক্রিপ্শন নিয়া সার্ভে চালায়ে দেখতে হবে স্ট্যাটাসটা।

যা-ই হোক, খোঁজতল্লাশ চালিয়ে দেখতে হবে এখনকার উঠতি শিশুকিশোরদের বাংলা পাঠচাহিদা কি, ইংরেজি বই আর কমিক্সপড়ুয়া বাংলা পাঠকবৃত্ত মূলত কোন ব্যাপারগুলোতে নিজেদেরে এনগেইজড রাখে; এবং তারপরেই ইন্ট্রোডিউস করতে হবে নতুন সময়ের চাহিদা নিবৃত্তির লক্ষ্যে একটি রিডিং ম্যাটেরিয়্যাল ডেভেলপের স্কিম। শিশুকিশোরদের জন্য প্রকাশনায় উদ্ভাবনার বিকল্প নাই। ‘কিশোর-প্রবন্ধ’ ধরনের বই নির্বিকল্প উদ্ভাবনী রিডিং উপকরণের পর্যায়েই পড়ে।

এই বইয়ের লেখক এরই মধ্যে বাংলাদেশের লুপ্তপ্রায় সাংস্কৃতিক চিহ্নাবলি নিয়ে তন্বিষ্ঠ গবেষণায় নিজের পদচারণ সমুজদার ও সুলুকসন্ধিৎসু পাঠকের সামনে পেশ করেছেন একাধিক প্রকাশনায়। বিশেষভাবেই বিশাল বাংলার জনপদাবলি ও মেঠোসুরচিত্র সমীক্ষায় লেখকের কাজগুলো অনেকেরই গোচরীভূত হয়েছে এবং যথাযোগ্য মান্যতা আদায় করে নিয়েছে। কিশোর-প্রবন্ধ শিরোনামে বই করার আইডিয়াটাই বিবিধ বিবেচনায় অভিনবত্বের দাবিদার। এই ধারায় লেখকের হাতবাহিত হয়ে, এমনকি অন্য রচয়িতাদের হাতেও হতে পারে, একটা ধারাবাহিক এবং বিষয়বিন্যাস্ত গ্রন্থপ্রবাহিকীও পরিকল্পিত হতে পারে। বিদেশে যেমন পাঠকজনের বয়সভিত্তিক বইপ্রকাশের দীর্ঘ বনেদ রয়েছে, এদেশেও ভবিষ্যৎপাঠকদের বিকাশে বুনিয়াদি বিষয়াদি নিয়ে বিস্তর বইরচনা এবং বইয়ের প্রকাশ ও প্রসারের ব্যাপারটা চালু করা যায়। এবং এইটা নানা কারণেই শিশুবিকাশের স্বার্থে জরুরি।

চৈতন্য প্রকাশন থেকে এই বইটি প্রকাশিত। অভিভাবকেরা তাদের সন্তানদের হাতে তুলে দিয়ে দেখতে পারেন বইটার কদর তারা করতে চাইছে কি না।

প্রতিবেদন / সুবর্ণ বাগচী

… …

COMMENTS

error: