দেখনদারি দি ইরেগ্যুলার্লি ৪ || বিধান সাহা

দেখনদারি দি ইরেগ্যুলার্লি ৪ || বিধান সাহা

SHARE:

সিনেমানাম : শাহ জাহান রিজেন্সি ।। পরিচালনা : সৃজিত চক্রবর্তী ।। রিলিজ : ১৮ জানুয়ারি ২০১৯ সাল ।। সিনেমাটোগ্রাফি : গৌরিক সরকার ।। সংগীত : অনুপম রায় ।। ভাষা : বাংলা ।। কান্ট্রি : ইন্ডিয়া


সম্পর্ক ও সম্পর্কহীনতার গল্প ‘শাহ জাহান রিজেন্সি’।

সিনেমাটা ভালো লাগল। একাধিক পর্বে ভাগ করেও একটাই গল্প বলার এই ধরন আমার ভালো লেগেছে। দুটো গান এখনও মনের ভেতর গুঞ্জন তুলে যাচ্ছে।

১। না না কিচ্ছু চাইনি আমি আজীবন ভালোবাসা ছাড়া।
২। বলো না রাধিকা তারে।

স্বস্তিকার সম্ভবত অভিনয়ের এটা মাস্টারপিস। আবীর এবং পরমব্রত চট্টোপাধ্যায় যথারীতি সাবলীল। চমক হিসেবে কাঞ্চনের কমেডি ছেড়ে সিরিয়াস চরিত্রে অভিনয় বোনাস। কাঞ্চন মল্লিক কতখানি বড় অভিনেতা তা এই সিনেমায় প্রমাণিত। অঞ্জন দত্ত, রুদ্রনীল, মমতাশঙ্করের অভিনয় আগের মতোই। তবে চরিত্র হিসেবে ঋতুপর্ণা সেনগুপ্তের চরিত্রটি যথেষ্ট দুর্বল। এখনও ভেবে পাচ্ছি না ঋতুপর্ণা এমন একটি দুর্বল চরিত্রে অভিনয়ে রাজি হলেন কেন?

একজনের কথা এখন খুব মনে পড়ছে। চুরি করে যার ফেসবুক স্টক করতে গিয়ে প্রথম পেয়েছিলাম ‘বলো না রাধিকা…’ গানের লিঙ্ক। তারপর কতবারই-যে গানটা শুনেছি! অদ্ভুত ভালোলাগায় আচ্ছন্ন হয়েছি প্রতিবারই। আর আরেকদিন একজন বলেছিল, অকারণই তার মনের ভেতর ‘আজীবন’ শব্দটা বদলে গিয়ে ‘অকারণ’ হয়ে গাইছে, না না কিচ্ছু চাইনি আমি ‘অকারণ’ ভালোবাসা ছাড়া…

আমি বলেছিলাম, অকারণই ভালো। এই যেমন আমি, আমরা, অকারণেই তো পরস্পরকে ভালোবাসি। ভালোবাসা কি কারণ মেনে হয়?

কারণ না থাকা বলে অকারণই এইটুকু বলা। অকারণই অতর্কিতে ডাকি। অকারণ ভালোবাসাবাসি।

না না কিচ্ছু চাই না আমি অকারণ…

… …

COMMENTS

error: