মেরিলের মুখবাণী (৩)

মেরিলের মুখবাণী (৩)

SHARE:

আমার ধারণা দুনিয়ার সব মানুষই গোসলখানায় দিনের সেরা সময়টা কাটায়, শাওয়ারের তলায়, এবং সকলেই গুনগুনায়, সকলেরই গলা খুলে যায় শাওয়ার নিবার সময়, রিভার্বের সাউন্ডটা দারুণ পাওয়া যায়, পানির ঝর্ণাঝোরায় আরামে ডুবিয়া যায় মানুষ, এবং মুক্তির সবচেয়ে ভালো ফিলটা পাওয়া যায় এই সময়।

মা হবার সবচেয়ে ইন্ট্রেস্টিং দিকটা বোধহয় এইটাই যে সব্বাই পোষা প্রাণির সঙ্গ ভালোবাসে, খেলতে পছন্দ করে পোষাটার সঙ্গে, কেউই কিন্তু পোষা কুকুর হোক বা বিলাইয়ের হাগু সাফ করতে আগায় না একমাত্র মা ছাড়া। আমার বাসায় আমিই যেহেতু মা, আমিই কুকুরের বিলাইয়ের হাগুমুতু সাফা করি।

আশ্চর্য লাগে আমার কাছে এই জিনিশটা যে লোকে কী সহজেই-না রাগে গরগর করে, লণ্ডভণ্ড করে ফেলে চারপাশ ক্রোধান্ধ হয়ে। অসুখা মানুষগুলার হাতে বন্দুক গেলে এরা দেশের বারোটা বাজাবে ছাড়া আর তো কিছুই করতে পারবে বলে মনে হয় না।

যা আমাদেরে মানুষ হিশেবে গড়ে তোলে, তা তো কোনোভাবেই মানুষের নাগালের বাইরে রাখতে পারবা না। চাইলেও পারবা না। ট্রাই করো যতই সব শেষমেশ হুদাই।

আমি বয়স্ক বুড়া মানুষ। এক-ধরনের সিনিয়রিটি তো চলে এসেছে আমার মধ্যে। সত্যি বলতে কি, বয়স হলেই আপনার মধ্যে সিনিয়রিটি আপসেআপ গজায়ে যায়। আপনি চান বা না চান বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে চারপাশের সবকিছু দেখভালের দায়িত্বটাও বর্তায় আপনার উপর।

ফ্যামিলি কীভাবে টেইক কেয়ার করবেন এই ব্যাপারে কোনো রোডম্যাপ নাই কথাটা সত্যি। ফ্যামিলি রেইজ করা বা ফ্যামিলির মেইন্টিন্যান্স সবসময় এক অতিকায় নেগোসিয়েশনের কারবার।

চয়ন, সংকলন ও অনুবাদন : বিদিতা গোমেজ

… …

COMMENTS

error: